1. admin@shadin-bd.com : admin :
  2. shadinbd@gmail.com : shadin : Nazmul Mondol
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১০:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ -
উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীতা প্রত্যাহার করলেন আলমগীর হোসেন আকন্দ ঝালকাঠি সদর ও নলছিটি উপজেলায় ৩পদে ২৪ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র দাখিল তীব্র তাপপ্রবাহে রিকশাচালকদের মাঝে পানি ও স্যালাইন বিতরণ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে ৮ প্রার্থীকে শোকজ পত্নীতলায় শুরু হয়েছে তিন দিনব্যাপী কৃষি মেলা শ্রীপুরে নেশার টাকা দিতে অস্বীকার করায় মায়ের হাতের রগ কেটে দিয়েছে কুলাঙ্গার সন্তান দুধমুখা স্টার লাইন কাউন্টারে যাত্রী হয়রানীর অভিযোগ শ্রীপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই সাংবাদিক আহত দক্ষিনখানে ঈদের ছুটিতে ফাঁকা বাসার ৫টি ফ্ল্যাটে দুর্ধর্ষ চুরি শ্রীপুরের উন্নয়নে নেতাকর্মীদের শর্ত দিয়ে নির্বাচনের ঘোষণা দিলেন – দুর্জয়।

ইউএনওকে বহাল রাখার দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান

  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪
  • ৬৯ বার পঠিত

আমির হোসেন, ঝালকাঠি, প্রতিনিধিঃ ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো: নজরুল ইসলামকে জনস্বার্থে সরকারি বিধি মোতাবেক সর্বোচ্চ সময় নলছিটিতে রাখার দাবিতে বরিশাল বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়েছে। রোববার দুপুরে বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার জনাব মো:শওকত আলীর কাছে স্মারকলিপি পেশ করেন উপজেলার সেচ্ছাসেবী ও সাধারণ মানুষের পক্ষে সমাজকর্মী বালী তূর্য।

বর্তমান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নজরুল ইসলাম উপজেলায় যোগদানের চার-পাচ মাসের মাথায় কিছু প্রভাবশালী ব্যক্তিদের রোষানলে পরে গেছেন বলে তিনি জানান।তাঁর দেশ প্রেমের চেতনা, সততা,দক্ষতা,সাহসিকতা এই উপজেলার সর্বস্তরের সাধারণ মানুষের মন জয় করে নিলেও তা কিছু প্রভাবশালীদের জন্য সমস্যার কারন হয়ে গেছে। তাই তারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে নলছিটি থেকে বদলি করার জন্য নানা ভাবে চেষ্টা করছে বলেও তিনি জানান। কিন্তু উপজেলার সকল সাধারণ মানুষ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নজরুল ইসলামকে জনস্বার্থে সরকারি বিধি মোতাবেক যথা সম্ভব সর্বোচ্চ সময় নলছিটির উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে চায়।

স্মারকলিপি থেকে জানা যায়,তিনি যোগদানের পরেই উপজেলা পরিষদ চত্তরের সৌন্দর্য বৃদ্ধির কাজ শুরু হয়েছে। মহান বিজয় দিবসে বাংলাদেশের পতাকার আদলে আলোকসজ্জা তার মেধা এবং দেশপ্রেমের এক উদাহরণ ছিলো,যা দেশ জুড়ে প্রশংসা কুরিয়েছিলো।তিনি যোগদানের পর উপজেলার বিভিন্ন ঐতিহ্য রক্ষা এবং সম্ভাবনাময় ক্ষাত চিনহিত করে তার উন্নয়নে কাজ শুরু করেছেন। যার মধ্যে শীত কালীন অতিথি পাখির ককলকাকলিতে মুখরিত কুমারখালি মরা নদীকে পর্যটন স্পট বানানোর উদ্যোগ নেয়া ও নলছিটিতে পার্ক নির্মানের চেষ্টা অন্যতম।

তিনি যোগদানের পরপরই উপজেলার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের বেদখল যায়গায় ইজিবাইক স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করে দেশের ভাষা শহীদদের স্মরণে নির্মিত শহীদ মিনারের ভাবমূর্তি রক্ষা করেন।

উপজেলা পরিষদ চত্তরে পুরনো ছোট্ট শিশুপার্ক ফের নতুন করে দোলনা এবং আরও কয়েকটি খেলার উপকরণ পেয়ে শিশুদের হাসিখুশিতে মুখরিত হয়েছে তার উদ্যোগে।

উপজেলা পরিষদ চত্তরের ফাকা যায়গায় গাড়ি পার্কিং করে দখল করে রাখা হতো, সেখানে সৌন্দর্য বর্ধন করে ফুলের বাগান নির্মান করা হচ্ছে।

এছাড়াও উপজেলা সাস্থ্য কমপ্লেক্সের মশার উপদ্রব বন্ধে, রোগীর সেবার মান, খাবারের মান উন্নয়নে তার তড়িৎ গতিতে উদ্যোগ গ্রহন রোগীদের দুর্ভোগ অনেকাংশেই লাঘব হয়েছে মাত্র এক দিনের মধ্যে।উপজেলা সাস্থ্য কমপ্লেক্সের রোগীদের দেখতে গিয়ে রোগীদের সমস্যার কথা শুনে দ্রুত তা সমাধান করার নজির এই উপজেলায় খুব একটা নেই।

উপজেলার সিদ্ধকাঠী ইউনিয়নের একটি সরকারি খালে একজন প্রভাবশালীর দেয়া বাধের কারনে কৃষকদের বোরো চাষ ব্যাহত হচ্ছে শুনেই তিনি এক দিনের মধ্যে সেই বাধ কেটে কৃষকদের পাশে দাড়িয়েছেন।

তিনি বিভিন্ন সেচ্ছাসেবী সংগঠনকে নিয়ে শহরের গুরুত্বপূর্ণ কিছু স্থানের ময়লা পরিস্কার করে ফুলের গাছ রোপণ করিয়েছেন,যা আসলে এই উপজেলার মানুষের কল্যানেই করা হয়েছে।
অসহায় দরিদ্র রোগীদের জন্য তিনি নিজের পকেটের টাকা দিয়ে ঔষধ কিনে দিয়েছেন,কিন্তু প্রচার করতে নিষেধ করেছেন।
নিজের হাতে শীতকালীন কম্বল বিতরণ করেছেন নলছিটিতে বসবাসরত ৭০ টি বেদে পরিবার, আশ্রয়ন প্রকল্পের বাদিন্দা ও প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের শিশুদের মাঝে।

কিছুদিন আগে স্বর্নপদক জয়ী কারাতে ব্ল্যাকবেল্ট মিথিলা মৌ এবং জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত দুই স্বর্নকিশোরীকে সংবর্ধনা দেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম,এতে ব্যাপক প্রশংসিত হন তিনি।

এছাড়াও তিনি যোগাদানের পরে ড্রেজার দিয়ে অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ করে দিয়েছেন।এখনো একটি ড্রেজার জব্দ করা রয়েছে স্থানিয় মল্লিকপুর খালে।যারফলে অনেকের অবৈধ আয়ে বাধা পরেছে।কিন্ত শান্তি পাচ্ছে নদী তীরের মানুষ, কমেছে নদীর ভাঙন।

তারা আরও বলেন আমরা চাই তিনি সরকারি বিধি মোতাবেক যথা সম্ভব সর্বোচ্চ সময় নলছিটি উপজেলায় কর্মরত থাকুন।

এসময় তারা স্থানীয় সংসদ সদস্য জননেতা আলহাজ্ব আমির হোসেন আমু, এমপি মহোদয়ের দৃষ্টি আকর্ষণ করে বিষয়টি জনস্বার্থে বিবেচনা করারও অনুরোধ জানান।

Facebook Comments Box
এই জাতীয় আরও খবর
© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৮ স্বাধীন বিডি
Theme Customized By Shakil IT Park